স্কুলছাত্রীকে জোর করে ভুট্টা ক্ষেতে নিয়ে পালাক্রমে ধর্ষণ

প্রকাশিত: 11:37 PM, June 22, 2019

ডেস্ক রিপোর্ট: ঠাকুরগাঁওয়ে অষ্টম শ্রেণির এক ছাত্রীকে পালাক্রমে ধর্ষণের অভিযোগ উঠেছে। শুক্রবার সন্ধ্যার দিকে সদর উপজেলার মোহাম্মদপুর গিলাবাড়ি এলাকায় এ ঘটনা ঘটে।

এ ঘটনায় শুক্রবার রাতেই তিনজনের নাম উল্লেখ করে স্থানীয় কয়েকজন বখাটে যুবকের বিরুদ্ধে ঠাকুরগাঁও সদর থানায় একটি লিখিত অভিযোগ দায়ের করেছেন ওই ছাত্রীর বাবা। পরে ওইদিন রাতেই জিজ্ঞাসাবাদের জন্য বখাটে সবুজকে আটক করেছে পুলিশ।

অভিযোগ সূত্রে জানা গেছে, শুক্রবার সন্ধ্যার দিকে বাড়ির পাশের একটি ভুট্টা ক্ষেতে শুকনো ভুট্টার খড়ি সংগ্রহ করতে যায় ওই ছাত্রী। এসময় তাকে একা পেয়ে একই এলাকার মোহাম্মদ মোতালেবের বখাটে ছেলে সবুজ এবং তার সঙ্গী সাইফুল ও বাবুসহ বেশ কয়েকজন জোর করে ভুট্টা ক্ষেতের ভেতরে নিয়ে যায়। প্রথমে সবুজ তাকে ধর্ষণ করে। পরে বাকিরা ওই ছাত্রীকে পালাক্রমে ধর্ষণের চেষ্টা করে। এসময় পাশ দিয়ে পাওয়ার টিলার নিয়ে যাচ্ছিলেন প্রতিবেশী কালু ও ওসমান। মেয়েটির চিৎকারে শুনে তারা ধর্ষকদের ধাওয়া করলে সবুজ ও তার সঙ্গীরা উল্টো তাদের ওপর চড়াও হয়ে হামলা চালায়। এতে কালু ও ওসমান গুরুতর আহত হন। বর্তমানে তারা আধুনিক সদর হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছেন।

এ ব্যাপারে ঠাকুরগাঁও সদর থানার ওসি (তদন্ত) চিত্ত রঞ্জন রায় জানান, ভিকটিমের বাবা বাদী হয়ে তিনজনের নাম উল্লেখ করে সদর থানায় একটি লিখিত অভিযোগ দায়ের করেছেন। ওই দিনেই ছাত্রীর ডাক্তারি পরীক্ষার জন্য তাকে হাসপাতালে পাঠানো হয়। ডাক্তারি পরীক্ষার রিপোর্টে ঘটনার সত্যতা পাওয়া গেলে অভিযোটি মামলা হিসেবে গ্রহণ করা হবে।

তিনি আরও জানান, এ ঘটনায় জিজ্ঞাসাবাদের জন্য ইতোমধ্যে একজনকে আটক করা হয়েছে। অভিযুক্ত অন্যদেরও আইনের আওতায় আনার প্রক্রিয়া চলছে।